Ultimate magazine theme for WordPress.

বাউফলে চোখ উৎপাটনের প্রধান আসামী গ্রেফতার।

0
৩৩ Views

 

মোঃতুহিন শরীফ, সিনিয়ার স্টাফ রিপোটার্র।

পটুয়াখালীর বাউফলে পূর্ব বিরোধের জের ধরে মিন্টু মৃধা (৪০) নামের এক ব্যক্তির চোখ উৎপাটন মামলার প্রধান আসামী সোহেল মাতুব্বরকে ঢাকার শুত্রাপুর থানাধীন লালকুঠি লঞ্চঘাট থেকে গ্রেফতার করা হয়েছে। শুক্রবার রাত ১০টায় সময় তাকে গ্রেফতার করা হয় বলে জানিয়েছেন পটুয়াখালী অতিরিক্ত পুলিশ সুপার বেল্লাল হোসেন।
এই পুলিশ কর্মকর্তা তথ্য প্রকাশকে জানান, সোহেল শুক্রবার বিকালে বরিশাল থেকে গ্রীণলাইন লঞ্চে ঢাকা লালকুঠি লঞ্চঘাট এসে নামলে ঢাকা নৌ-পুলিশের সহায়তায় পটুয়াখালী জেলা পুলিশের একটি টিম ঘটনার ৯ ঘন্টা পর তাকে গ্রেফতার করে।

এর আগে শুক্রবার দুপুরে পূর্ব বিরোধের জের ধরে বাউফল সদর ইউনিয়নের গোসিংগা গ্রামের বাসিন্দা মিন্টু মৃধাকে (৪০) মদনপুরা ইউনিয়নের দ্বিপাশা উচা ব্রিজের কাছের বাজারে লিটনের দোকানে চা পান করছিলো। এসময় প্রতিপক্ষ দ্বিপাশা গ্রামের মৃত্যু ফজলে করিম মাতুব্বরের ছেলে মো. মিজানুর মাতুব্বর (৪০) তার ভাই সোহেল মাতুব্বর (৩৭) ও একই গ্রামের মৃত্যু সুলতান মৃধার ছেলে (মিজানুরের শালা) শাহিন মৃধা (২৮) এবং মিজানুরের ভগ্নিপতি কনকদিয়া গ্রামের মেহের আলী’র নেতৃত্বে ৪-৫ জন সন্ত্রাসী ধারালো অস্ত্র সস্ত্র নিয়ে তার ওপর হামলা চালায় এবং এলোপাতাড়ি ভাবে কুপিয়ে গুরুত্বর জখম করে। একপর্যায় দুর্বৃত্তরা মিন্টু মৃধার বাম চোখ খুঁচিয়ে তুলে ফেলে। ডান চোখটিও নষ্ট করার চেষ্টা করে। সন্ত্রাসীদের ধারালো অস্ত্রের আঘাতে মিন্টু মৃধার ডান চোয়াল মারাক্তক জখম হয়। এ ছাড়াও তার ডান পা ও ডান হাত প্রায় বিচ্ছিন্ন হয়ে যায়।

এ ঘটনায় ওই রাতেই মিন্টু মৃধার স্ত্রী রাজিয়া বেগম সোহেল মাতুব্বরকে প্রধান আসামী করে ৫ জনের বিরুদ্ধে বাউফল থানায় একটি মামলা করে।

Leave A Reply

Your email address will not be published.