Ultimate magazine theme for WordPress.

সুপ্রীমকোর্ট আইনজীবী সমিতির নির্বাচনে সদস্য পদে প্রার্থী শিবলী সাদেকীন।

0
১০১ Views

নিজস্ব প্রতিবেদক, নাইক্ষ্যংছড়ি, বান্দরবান:-

অ্যাডভোকেট এ.বি.এম শিবলী সাদেকীন আসন্ন ১০ ও ১১ মার্চ অনুষ্ঠিতব্য বাংলাদেশ সুপ্রীমকোর্ট আইনজীবী সমিতির কার্যকরী কমিটির ২০২১-২০২২ সালের নির্বাচনে বঙ্গবন্ধু আওয়ামী আইনজীবী পরিষদ সমর্থিত সম্মিলিত আইনজীবী সমন্বয় পরিষদ থেকে একজন সদস্য পদপ্রার্থী; ব্যালট নং-১।

অ্যাডভোকেট শিবলী সাদেকীন বান্দরবান জেলার নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলার ঘুমধুম ইউনিয়নের কৃতি সন্তান। তিনি কক্সবাজার সরকারি উচ্চ বিদ্যালয় থেকে এস. এস. সি; কক্সবাজার সরকারি কলেজ থেকে এইচ. এস. সি; ঢাকাস্থ সাউথইস্ট বিশ্ববিদ্যালয় থেকে এলএল.বি ও এলএল.এম ডিগ্রি অর্জন করেন।

তিনি ২০০৮ সালে বাংলাদেশ বার কাউন্সিল থেকে আইনপেশার সনদপ্রাপ্ত হয়ে ঢাকা আইনজীবী সমিতিতে সদস্যভুক্ত হন। ২০১০ সালে বাংলাদেশ সুপ্রীমকোর্টের হাইকোর্ট ডিভিশনে আইনপেশা পরিচালনার অনুমতি প্রাপ্ত হন। তখন থেকে নিয়মিত হাইকোর্ট ডিভিশন আইনপেশা পরিচালনা করে আসছেন।

তিনি ছাত্রজীবনে নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলা ছাত্রলীগের সদস্য এবং বাংলাদেশ আওয়ামী আইন ছাত্র পরিষদের সাউথইস্ট বিশ্ববিদ্যালয় শাখার আহবায়ক কমিটির সদস্য ছিলেন। পরবর্তীতে বাংলাদেশ আওয়ামী যুব আইনজীবী পরিষদ সুপ্রীম কোর্ট বার শাখার ও বৃহত্তর চট্টগ্রাম আইনজীবী সমিতির সাংঠনিক সম্পাদক হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। তিনি চট্টগ্রাম সমিতির আজীবন সদস্য।

অ্যাডভোকেট এ.বি.এম. শিবলী সাদেকীনের পিতা মো. খাইরুল বশর বান্দরবান জেলার একজন প্রবীণ রাজনীতিবিদ এবং ঘুমধুম ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক তিনবারের নির্বাচিত সফল চেয়ারম্যান। ছোট ভাই অ্যাডভোকেট এস.এম. তারিক আজীজ জামী ঢাকা বারের সদস্য। এছাড়াও অ্যাডভোকেট এ.বি.এম শিবলী সাদেকীনের নানা মরহুম অ্যাডভোকেট সিরাজুল ইসলাম কক্সবাজার জজ আদালতের একজন প্রতিথযশা আইনজীবী ও সরকারি কৌশলী ছিলেন।

অ্যাডভোকেট এ.বি.এম শিবলী সাদেকীন একজন ভদ্র, স্মার্ট , বঙ্গবন্ধুর আদর্শে আদর্শিত নিরলস সৈনিক, নিষ্ঠাবান , নিরহংকারী একজন আইনজীবী।
সুপ্রীমকোর্ট বারের উন্নয়নের স্বার্থে অ্যাডভোকেট এ.বি.এম শিবলী সাদেকীন এর মতো তরুণ, নবীন আইনজীবী বান্ধব নেতৃত্ব দরকার বলে অভিমত ব্যক্ত করেন সুপ্রীম কোর্ট বারের সদস্যরা।

Leave A Reply

Your email address will not be published.